মুক্তাগাছা প্রয়াত ফকির সাহাবউদ্দিন স্মৃতি ফুটবল খেলার শুভ উদ্বোধন

0
1795

স্টাফ রিপোটার : আজ মঙ্গলবার শনিবার বিকালে স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম অ্যাটর্নি জেনারেল,গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধান প্রণেতাগণের অন্যতম গণপরিষদ সদস্য,মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক এবং জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর ফকির সাহাবউদ্দিন স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্ট উদ্ভোধন করা হয়েছে।

জেলা সদরের মুক্তাগাছা পদুরবাড়ী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত খেলা প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে উদ্বোধন করেন মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয় মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা আ.ক.ম মোজাম্মেল হক।

বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, কেন্দ্রীয় কৃষক লীগের সভাপতি মোতাহের হোসেন মোল্লা, ময়মনসিংহ জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এড.জহিরুল হক খোকা। সাধারণ সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল।
ইঞ্জিনিয়ার সিদ্দিকুর রহমান মাষ্টারের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন, মুক্তাগাছা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন সরকার, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা হুমায়ুন কবির হিমেল,মুক্তগাছা উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক দেবাশীষ ঘোষ বাপ্প্,ি ছাত্রলীগ নেতা তারিনসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি হিসাবে মুক্তিযোদ্ধা মন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা আ.ক.ম মোজাম্মেল বলেন, বাংলাদেশের প্রথম অ্যাটর্নি জেনারেল, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের সংবিধান প্রণেতাগণের অন্যতম গণপরিষদ সদস্য এবং জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর স্মরণে ফুটবল টুর্নামেন্ট আয়োজন করে ফকির সাহাবউদ্দিন প্রতি মানুষের ভালবাসার প্রমান দিয়েছেন। এ ভালবাসার প্রতিদান কোনভাবেই পুরণ করা সম্ভব নয়। তিনি এ জন্য এলাকাবাসী ও আয়োজকদের প্রতি ঋণী হয়ে থাকলেন বলে তার বক্তব্যে তুলে ধরেন। সবশেষে ফুটবল একটি সুশৃংখল খেলা আর সেই খেলাকে শাান্তিপূর্ণ পরিবেশে শেষ করার আহবান জানান।

এ সময় বিশেষ অতিথি এডভোকেট জহিরুল হক খোকা বলেন, বর্তমান সরকার উন্নয়ন বান্ধব সরকার। সরকার আলাদা ক্রীড়া মন্ত্রণালয় করেছেন। সেই মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে ক্রীড়া জগতে বিশেষ অবদান রেখে সুনাম বইয়ে আনছে। খেলাধুলার মাধ্যমে বাংলাদেশ আজ বিশ্বে ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেছে। এ দেশের ক্রীঢ়াবিদরা বিশেষ করে নারী এবং কলসিন্দুরের মেয়ে খেলোয়াররা বাংলাদেশকে আরো সুউচ্চ শিখরে পৌছে দিতে সক্ষম হয়েছে।

এ সময় বেলুন ও কবুতর উড়িয়ে খেলার শুভ উদ্ভোধন করা হয়। রাস্তায় রাস্তায় গাড়ি থামিয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতিকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়। রাস্তার চারপাশে ব্যাপক বীলবোর্ড রক্ষা করা যায়।

 

মন্তব্য করুন