নিজের জীবন দিয়েই তার দাম চোকাল

0
1405

সংবাদ সংস্থা: বয়স মাত্র ন’বছর। স্বভাবসিদ্ধ ভাবেই দুষ্টুমি করেছিল সে। আর এই লঘু দোষেই মিলল গুরু দণ্ড! নিজের জীবন দিয়েই তার দাম চোকাল সে। এক শিশুর মৃত্যুর ঘটনায় তদন্তে নেমে যে সত্য উঠে এল তা জেনে চমকে গিয়েছেন পুলিস আধিকারিকরাও। দুষ্টুমির শাস্তি দিতে ন’বছরের শিশুর কোলে চেপে বসলেন ৬৯ বছরের পরিচারিকা। ১৫০ কেজির আয়ার চাপ সহ্য করতে না পেরে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে ডেরিককা লিন্ডসে নামে শিশুটি। ফ্লোরিডার পেনসাকোলার ঘটনা।

সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ওই শিশুটির বাবা-মা কাজের সূত্রে সারা দিন বাড়ির বাইরে থাকেন। ন’বছরের মেয়ের দেখভালের জন্য গ্রেস জোয়ান স্মিথ ও জেমস এডমন্ড স্মিথ নামে এক দম্পতিকে নিযুক্ত করেছিলেন তাঁরা। ৯ অক্টোবরই ঘটে যায় সেই মর্মান্তিক ঘটনা। দুষ্টুমি করায় শিশুটিকে শাস্তি দিতে অদ্ভূত কাণ্ডটি করেন জোয়ান স্মিথ। শিশুটিকে বাগে আনতে তার কোলে বসে পড়েন তিনি। প্রায় ১২ মিনিট ধরে ১৫০ কিলো ওজনের আয়াকে সহ্য করতে হয় শিশুটিকে। এরপরই অসুস্থ হয়ে পড়ে সে। গত শনিবার হাসপাতালেই মৃত্যু হয় তার। চিকিত্সকরা জানিয়ে দেন, অতিরিক্ত চাপে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে শিশুটির। তখনই সন্দেহ হয় পরিবারের।

অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নেমে পুলিসের হাতে উঠে আসে চাঞ্চল্যকর এই তথ্য। পুলিসের জেরায় নিজের অভিযোগ স্বীকারও করে নিয়েছেন আয়া। তাঁর সাফাই, ”শিশুটি দুষ্টুমি করছিল। ওকে শান্ত করতেই এই কাজ করেছি। পরিস্থিতি এরকম হয়ে যাবে, তা বুঝিনি।” পুলিস ওই দম্পতিকে গ্রেফতার করেছে। তাঁদের বিরুদ্ধে শিশু নিগ্রহ ও খুনের অভিযোগ আনা হয়েছে।

মন্তব্য করুন