জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারী নেতৃত্ব বৃদ্ধিতে সংবাদ সম্মেলন

0
856
 স্টাফ রিপোর্টার :ডোমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ, ময়মনসিংহ আঞ্চলিক কার্যালয় এর সহযোগিতায় ‘নারীর জয় সবার জয়’ ক্যাম্পেইনের ময়মনসিংহের সদস্যদের উদ্যোগে ২৪ অক্টোবর  দুপুরে ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের মাসকান্দাস্হ রিজিওনাল কার্যালয়ে ‘রাজনীতিতে নারীর অংশগ্রহণ বৃদ্ধি’ শীর্ষক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।
সংবাদ সম্মেলনে স্থানীয় রাজনৈতিক নারী নেতৃবৃন্দ আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারীর অংশগ্রহণ বৃদ্ধিতে নির্বাচন কমিশন, রাজনৈতিক দল এবং সরকারের কাছে কিছু গুরুত্বপূর্ণ সুপারিশমালা তুলে ধরেন। ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনাল ‘নারীর জয়ে সবার জয়’ ক্যাম্পেইনের আওতায় এডভোকেসি, প্রশিক্ষণ ও নেটওয়ার্কিং এর মাধ্যমে সারাদেশে ৪শ’৩০টি জাতীয় এবং তৃণমূল কমিটিতে প্রায় ৫ হাজার ৪শ’ ৪৯ জন নারীকে অন্তর্ভুক্ত হতে সহায়তা করেছে। পাশাপাশি বিভিন্ন প্রশিক্ষণের মাধ্যমে নারীদের রাজনৈতিক দক্ষতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করছে।
আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে নারী নেতাদের সাধারণ আসনে মনোনয়ন বৃদ্ধিতে কাজ করছে। বাংলাদেশে জাতীয় সংসদে নারীদের জন্য একটি বিস্তৃত কোটা ব্যবস্থা রয়েছে, যেখানে ৫০টি আসন নারীদের জন্য সংরক্ষিত। এসব অর্জনের পরও রাজনৈতিক দলের সকল পর্যায়ের নীতি নির্ধারণের ক্ষেত্রে নারীদের তেমন অংশগ্রহণ নেই। গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ ২০০৯ (সংশোধিত) অনুযায়ী ২০২০ সালের মধ্যেই মূলদলের সকল পর্যায়ের কমিটিগুলোতে বাধ্যতামূলকভাবে ৩৩% নারী অন্তর্ভুক্ত করার কথা বলা হয়েছে। কিন্ত, জাতীয় পর্যায়ের কমিটিতে নারী অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি থাকলেও ইউনিয়ন থেকে জেলা পর্যায় পর্যন্ত দলের নেতৃস্থানীয় পদগুলোতে নারীর অংশগ্রহণ খুবই নগন্য। গত ২০০৮ সালে নির্বাচনে সাধারণ আসনে নির্বাচিত নারী প্রার্থীর সংখ্যা ছিল ১৯জন এবং বর্তমান পার্লামেন্টে সেটার সংখ্যা দাড়িয়েছে ২২ জনে।
গত সংসদ থেকে বর্তমান সংসদে সাধারণ আসনে নারী প্রতিনিধি বৃদ্ধি পেয়েছে মাত্র ৩ জন। বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রায় ২০ হাজারেরও বেশি নারী নেতৃবৃন্দ সম্পৃক্ত রয়েছেন। সারাদেশে ৪শ’৩০টি জাতীয় এবং তৃণমূল কমিটিতে প্রায় ৫ হাজার ৪শ’ ৪৯ জন নারীকে অন্তর্ভুক্ত হতে সহায়তা করেছে। পাশাপাশি বিভিন্ন প্রশিক্ষণের মাধ্যমে নারীদের রাজনৈতিক দক্ষতা বৃদ্ধিতে সহায়তা করছে।
সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামী লীগের আনোয়ারা সুলতানা, এড. রাশেদা তাহমিনা প্রীতি, সৈয়দা রোকেয়া আনসারী শিখা , ড. সেলিনা রশিদ, নাসিমা খাতুন, সালমা আক্তার কাকন, নুরজাহান মিতু,মাহমুদা মলি, মতিউন্নুহার মুক্তি, শিউলী আক্তার,মর্জিনা অাক্তার,নূরজাহান ভূইয়া সহ আরো অনেকে।
জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের ফরিদা ইয়াসমিন পারভিন, খালেদা আতিক, তাহমিনা বানু, রোখসানা শিরিন, আতিয়া ফাইরোজ মলি, শান্তুনা সরকার শেলী, তাহলিমা রুকন রুমি, মালতিসহ আরো অনেকেই। সংবাদ সম্মেলনে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন জেলা মহিলা অাওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ারা সুলতানা,নারীনেত্রীদের পক্ষে সুপারিশ মালা উপস্থাপন করেন মহিলা অাওয়ামীলীগ নেত্রী এড.রাশেদা তাহমিনা প্রীতি, সভাপতিত্ব করেন খালেদা আতিক এবং সার্বিক সঞ্চালনায় ছিলেন-জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের ফরিদা ইয়াসমিন পারভীন।
অনুষ্ঠানটির সার্বিক সমন্বয়কারী হিসেবে ভূমিকা পালন করেন বাংলাদেশ অাওয়ামীলীগ মনোনীত ডিঅাই পলিটিকাল ফেলো সুমন চন্দ্র ঘোষ ও বিএনপির জাহিদ হোসেন উৎপল এবং সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেন ডেমোক্রেসি ইন্টারন্যাশনালের সিনিয়র রিজিউনাল কো-অর্ডিনেটর নার্গিস অাক্তার।

 

মন্তব্য করুন