গোদাগাড়ীতে রাস্তা ও জমি দখলের অভিযোগ- প্রাণ কোম্পানীর বিরুদ্ধে

0
1559

শামসুজ্জোহা (বাবু),গোদাগাড়ী প্রতিনিধিঃ রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার গোপালপুর এলাকায় ৪ গ্রামবাসীর রাস্তা দখলের অভিযোগ প্রাণ কোম্পানীর বিরুদ্ধে।
গতকাল মঙ্গলবার দুপুর ১২ টার দিকে সে রাস্তা উদ্ধার করলো গ্রামবাসীরা। উপজেলার গোপালপুরে অবস্থিত প্রাণ কোম্পানীর পার্শ্বে পিরিজপুর গ্রামের মৃত নিয়ামতুল্লাহর ছেলে মোকলেস এর জমি ক্রয় না করে দখল করার অভিযোগ উঠেছে প্রাণ কোম্পানীর বিরুদ্ধে।

অভিযোগকারী মোকলেস বলেন আমার জমির পার্শ্বে দিয়ে পিরিজপুর,হিজলগাছি,চাঁন গোবিন পুর ও গোপাল পুর গ্রামের মানুষ চলাচল করে ২০ বছর ধরে ,এ রাস্তা দিয়ে প্রায় ছয়শতাধিক ছাত্র/ছাত্রী স্কুলে ও সকল পেশার মানুষ যাতায়াত করে। এ রাস্তা বন্ধ হয়ে গেলে ছাত্র/ছাত্রী,রোগীসহ সকল মানুষের যাতায়াতের কোন পথ থাকবেনা। তাই গ্রাম সকল বাসী স্বাক্ষরিত উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি অভিযোগ দাখিল করা হয়।

মোকলেস আরো বলেন, সাধারণ মানুষের চলাচলের জন্য কিছু জমি রাস্তার জন্য রেজিস্ট্রির মাধ্যমে দান করেছি। কিন্তু সে জমি জোরপূর্বক দখল করে কাটা তাঁরের বেড়া তৈরী করে প্রাণ কোম্পানী । তাই গ্রামবাসী ঐক্যবদ্ধ হয়ে সে কাটা তাঁরের বেড়া উঠিয়ে ফেলেছে। গ্রামবাসীরা বলেন মামলা থাকার সত্বেও গত ৩ থেকে ৪ দিন আগে রাতে রাতে এই বেড়া তৈরী করা হয় । তাই আমরা বাধা দিতে পারিনি। তবে সে মামলার কার্যক্রম বিচারাধীন রয়েছে ফৌজদারী কার্য বিধি ১৪৪ ধারায় মামলা নং-২৫০/১৭ (গোদাগাড়ী) শান্তি –শৃংখলা বজায় রাখার জন্য উভয় পক্ষকে নোটিশ করা হয় । কিন্তু কোর্টের আদেশ অমান্য করে উভয় পক্ষ ঝগড়ায় লিপ্ত হয়।

গ্রামবাসীরা আরো বলেন, নিষ্পত্তির জন্য পাঁচ নভেম্বর মঙ্গলবার ইউনিয়ন পরিষদে বসার করার কথা ছিলো ।সেখানে প্রাণ কোম্পানীর প্রতিনিধি উপস্থিত হয়নি তাই বাধ্য হয়ে আমরা এ কাজ করেছি।

প্রাণ কোম্পানীর গোদাগাড়ী গোপালপুর শাখার এ্যাডমিন মাহাফুজুর রহমান বলেন ,যে অভিযোগ প্রাণ কোম্পানীর বিরুদ্ধে উঠেছে তা মিথ্যা, তবে এত বড় কোম্পানী জমিজমা নিয়ে বিরোধ থাকতে পারে । পরিষদে বসার কথা ছিলো তবে আমাদের সকল দলিল পত্রাদী সঠিক রয়েছে। কিন্তু আমাদের কোম্পানীর এমডি দেশের বাইরে থাকার কারণে আমরা যেতে পরিনি ,তাই কোম্পানীর পক্ষ থেকে সময় নেওয়া হয়েছে।

মাটিকাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলী আযম তৌহিদ বলেন, মহামান্য আদালত থেকে পরিষদে এ বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য একটি চিঠি আসে ।সে চিঠি মোতাবেক উভয় পক্ষকে পরিষদে বসার জন্য নোটিশ করা হয়।এবং উভয় পক্ষকে মামলাকৃত জমিতে কোন প্রকার কাজ না করার জন্য অনুরোধ করা হয়। কিন্তু উভয় পক্ষ তা অমান্য করেছে। তবে শান্তি শৃংখলা বজায় রাখার জন্য উভয় পক্ষকে আগামী ১৩ ই ডিসেম্বর পরিষদে বসার জন্য ডাকা হয়।

প্রেমতুলি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ আব্দুল লতিব বলেন, প্রাণ কোম্পানীর বিরুদ্ধে জমি দখল সংক্রান্ত মামলা করেছে মোকলেস এবং গ্রামবাসীর রাস্তা দখলের অভিযোগও রয়েছে। তবে এমন পর্যায়ে চলে যাবে আমরা বুঝতে পারিনি । এখুন পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে । বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য মাটিকাটা ইউনিয়নের চেয়াম্যানের উপর দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

 

মন্তব্য করুন